এফডিসিতে এবার কোরবানি হচ্ছে ১৪টি গরু 

ইমরুল শাহেদঃ

এফডিসিতে এবার কোরবানি হচ্ছে ১৪টি গরু,এ তথ্য জানিয়েছে চলচ্চিত্র পরিবারের একজন সদস্য। এর মধ্যে প্রযোজক পরিবেশক সমিতি, পরিচালক সমিতি, শিল্পী সমিতির মাধ্যমে শাপলা মিডিয়া ৬টি এবং পরী মনি এককভাবে কোরবানি দিবেন ৬টি গরু। এছাড়া অন্যান্য দিক থেকে আসতে পারে আরো ২টি। শাপলা মিডিয়া সূত্রে জানা গেছে, প্রযোজনা প্রতিষ্ঠানটির কর্ণধার সেলিম খান নিজেই উদ্যোগ নিয়ে এই কোরবানির আয়োজন করছেন। এছাড়া শাপলা মিডিয়ার পক্ষ থেকে সহশিল্পীদের জন্য ঈদ উপহার থাকবে। সেলিম খান নিজেই সেগুলো সকলের মধ্যে বিতরণ করবেন। পক্ষান্তরে পরী মনি ২০১৬ সাল থেকেই এফডিসিতে কোরবানি দেওয়া শুরু করেন। তার শুরু একটি গরু দিয়ে। এরপর প্রতি বছর একটি করে বাড়াতে থাকেন। সাবেক অভিনেত্রী শিল্পী এবং অভিনেত্রী নিপুণও এফডিসিতে কোরবানি দিয়েছেন। কিন্তু সকলকে ছাপিয়ে উঠেন পরী মনি। তার কোরবানির গরুর সংখ্যা প্রতি বছর একটি করে বাড়তে থাকে। গত বছর তিনি কোরবানি দিয়েছেন ৫টি গরু। এবার দিচ্ছেন ৬টি। এর ব্যাখ্যা দিয়ে পরী মনি বলেছেন, ‘গত পাঁচ বছর এফডিসিতে কোরবানি দিচ্ছি। এবার ছয় বছর হবে। তাই ছয়টি গরু কোরবানি দেব।’ পরীমণি গণমাধ্যমকে বলেন, ‘কোরবানি ঈদ সব সময় নানু বাড়িতে করতাম। আমি জানতাম না চলচ্চিত্রের অনেক কলাকুশলী মানবেতর জীবন-যাপন করেন। জানার পর থেকে এফডিসিতে কোরবানি দেই। যারা কোরবানি দিতে পারেন না, তাদের জন্যই এই উদ্যোগ।’ এই অভিনেত্রী এফডিসিকে দ্বিতীয় পরিবার মনে করেন। তিনি বলেন, ‘যতদিন বেঁচে থাকবো এফডিসিতে কোরবানি দেব।’ তবে এবার সতর্কতার সঙ্গে কোরবানি দেবেন; স্বাস্থ্যবিধি মেনে মাংস বিতরণ করবেন বলে জানান তিনি। গত বছর করোনা মহামারির মধ্যেও কোরবানির মাংস নিজে দাঁড়িয়ে থেকে অসচ্ছল শিল্পী ও কলাকুশলীদের হাতে তুলে দেন তিনি।

এই বিভাগের আরও খবর